1. news.ajkerkontho@gmail.com : Ajker Kontho : Ajker Kontho
  2. multicare.net@gmail.com : আজকের কন্ঠ :
শনিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২২, ০৬:৪৩ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
ফরিদপুরে ৭দিন ব্যাপি ফ্রি চক্ষু ছানি ক্যাম্প ও মেডিকেল ক্যাম্প এর উদ্বোধন দুই মোটরসাইকেল মুখােমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল এক যুবকের ফরিদপুরে ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন ককটেল বিস্ফোরনে যুবলীগ-ছাত্রলীগের চার নেতা আহত রাতের অন্ধকারে পুকুর খননের মহোৎসব, হুমকির মুখে ফসলি জমি অনুমতি ছাড়াই আমেরিকা পাড়ি জমালেন ইউসুফদিয়া সঃপ্রাঃ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত সালথায় পতিত জমি চাষাবাদের আওতায় আনার উদ্যোগ গ্রহণ সালথায় লাবু চৌধুরীর সংবর্ধনা উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা গৃহবধূ নাজমা আক্তার পনেরো দিন যাবত নিখোঁজ রয়েছেন 

রমজানপুরকে শহরে পরিনত করেছেন ড.আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি

Rabiul Hasan Rajib
  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
সত্য প্রকাশে নির্ভীক

রকিবুজ্জামান, মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ উন্নয়নের দিকে দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এর সাথে তাল মিলিয়ে মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলার রমজানপুরেও লেগেছে উন্নয়নের জোয়ার। যেই ইউনিয়নে কিছুদিন আগেও সন্ধ্যার পর রাস্তায় মানুষ পাওয়া যেত না, পিছিয়ে থাকা সেই ইউনিয়নেই বর্তমানে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি গড়ে উঠছে হাসপাতাল, ব্যাংকসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। আর এই প্রতিষ্ঠানগুলো গড়ে তোলার মাধ্যমে গ্রামকে শহরে রুপ দিতে দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন মাদারীপুর-৩ আসনের সাংসদ, আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ড.আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি।

কালকিনির রমজানপুর গ্রামটি অজপাড়াগাঁ হিসেবে অবহেলিত ছিল কিছুদিন আগেও। তবে ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, এমপি’র প্রচেষ্টায় অবহেলিত এ গ্রামটিই এখন শহরে পরিনত হয়েছে। আর সেই বদলে যাওয়ার চিত্র এখন সকলেরই চোখে পড়ছে।

বর্তমানে রাস্তাঘাট, স্কুল-কলেজ,ব্যাংক, হাসপাতাল সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান নির্মিত হয়েছে গ্রামটিতে।গ্রামের এই আমূল পরিবর্তনে ভীষণ খুশি এলাকাবাসী।

তথ্যপ্রযুক্তি ও টেকনিক্যাল ক্ষেত্রে গ্রামের ছেলে-মেয়েদের উন্নত বিশ্বের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকিয়ে রাখতে ড. আবদুস সোবহান গোলাপ,এমপি তাঁর মায়ের নামে গ্রামটিতে গড়ে তুলেছেন আনারন্নেছা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড বিজনেস ম্যানেজমেন্ট ইন্সটিটিউট। পাশাপাশি একই জায়গায় রয়েছে নিজের নামে করা ড. আবদুস সোবহান গোলাপ পলিটেকনিক ইন্সটিটিউট।

শিশু বয়স থেকে ছাত্রছাত্রীদের মেধাবী হিসেবে গড়ে তুলতে গ্রামটিতে রয়েছে আলহাজ্ব তৈয়ব আলী শিশুকল্যাণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়।এছাড়াও রয়েছে উত্তর রমজানপুর মডার্ন একাডেমি। গ্রামের সবার মাঝে তথ্যপ্রযুক্তিগত জ্ঞান ছড়িয়ে দিতে গড়ে তুলেছেন শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব।

এর বাইরে চাকরী প্রত্যাশী, বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির আবেদন ফরম পূরণ, পাসপোর্টের আবেদনসহ সকল ধরণের ইন্টারনেট সুবিধা দিতে রমজানপুরের এই প্রতিষ্ঠানের পাশেই সরকারীভাবে ইশান ডিজিটাল ল্যাব করেছেন ড.আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি।

গ্রামের সুবিধা বঞ্চিত প্রত্যেকটি মানুষের জীবন সংগ্রাম সহজ করতে এই ধরণের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি তিনি গড়ে তুলেছেন ডাক বিভাগের ই-পোষ্ট অফিস, সাবরেজিস্টার অফিস, কয়েকটি ব্যাংকের শাখা, ইভান ইন্টারনেট সার্ভিস টাওয়ার সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি নিজস্ব জমিতে গড়ে তুলেছেন ইসলামিক মিশন হাসপাতাল। যা চারতলা ভবনে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট ইসলামিক মিশন হাসপাতাল কমপ্লেক্সে রূপান্তর করা হচ্ছে।

স্কুল-কলেজ ও বিভিন্ন ইন্সটিটিউটের ছাত্র শিক্ষকদের আবাসিক সুবিধা দিতে প্রতিষ্ঠানগুলোর পাশেই গড়ে তুলেছেন শিক্ষকদের জন্য আবাসিক ভবন ও শিক্ষার্থীদের জন্য মো. হোসেন মাস্টার ছাত্রাবাস। এছাড়া গ্রামটিতে রয়েছে গুলশান আরা নার্সিং ইন্সটিটিউট, অনিশা মেডিকেল এ্যাসিস্ট্যান্ট ট্রেনিং স্কুল, কবির উদ্দিন আহম্মেদ হেলথ টেকনোলজি সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান।

প্রায় সবগুলো প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা মাদারীপুর-৩ আসনের সাংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ড.আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি বলেন, “আমি এই রমজানপুর গ্রামেই জন্মগ্রহণ করেছি।তাই এই গ্রামের প্রতি আমার অনেক দায়বদ্ধতা আছে। গ্রামের প্রত্যেকটি মানুষ ভালো থাকলে আমি শান্তি পাই।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্ন বাংলাদেশকে উন্নত রাষ্ট্রে পরিনত করতে হলে গ্রামকে আগে শহরে রুপ দিতে হবে। শহরের মতো সেবা ও সুযোগ-সুবিধা যাতে রমজানপুরে বসে পাওয়া যায় এজন্য আমি চেষ্টা করে যাচ্ছি।

আমার এই রমজানপুর গ্রামটা দেশের ৬৪ হাজার গ্রামের মধ্যে অনন্য গ্রাম হবে এটাই আমার স্বপ্ন।”

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

error: Content is protected !!